বৃহস্পতিবার ২৯ নভেম্বর ২০১৮



বাঘায় মাদক বিক্রি ও সেবনের অভিযোগে আঠারোজন গ্রেফতার


আলোকিত সময় :
28.09.2018

বাঘা (রাজশাহী) প্রতিনিধি :

রাজশাহীর বাঘায় র‌্যাব ও পুলিশের বিশেষ অভিযানে, মাদক সেবন ও বিক্রির অভিযোগে আঠারোজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। বুধবার (২৬-৯-১৮) রাতে তাদের আটক করা হয়। এর মধ্যে উপজেলার চকছাতারি গ্রামের নুরুজ্জামানের ছেলে সবুজ, কলিগ্রামের নজরুলের ছেলে মানিক ও বেলাল হোসেনের ছেলে শফিকুল ইসলামকে ইয়াবাসহ আটক করে পুলিশ। এই ৩জনের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করে আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে।
অপরদিকে মাদক সেবনের অভিযোগে ১৫ জনকে আটক করে রাজশাহী র‌্যাব-৫। আটককৃতদের ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে অর্থদন্ড ও বিনাশ্রম কারাদন্ড প্রদান করা হয়েছে। উপজেলা নির্বাহি অফিসার ও নির্বাহি ম্যাজিষ্ট্রেট শাহিন রেজা এ রায় প্রদান করেন। তিন মাসের বিনাশ্রম কারাদন্ড প্রাপ্ত এগারো জন হলো- উপজেলার আড়ানী চকরপাড়া গ্রামের আজাহার আলীর ছেলে আলাউদ্দিন, আড়ানী চকসিংগা গ্রামের জফির উদ্দিনের ছেলে সোহেল রানা, নুরনগর গ্রামের আবদুর রাজ্জাকের ছেলে রনি হোসেন, আড়ানী চকরপাড়া গ্রামের মুনতাজ আলীর স্ত্রী মিনা বেগম, কুশাবাড়িয়া গ্রামের সাইদুর রহমানের ছেলে সাদেক আলী, বেলগাছি গ্রামের রইস উদ্দিনের ছেলে রেজা হোসেন, বারোখাদিয়া গ্রামের রিয়াজ উদ্দিনের ছেলে সাহার আলী, আরিফপুর গ্রামের দুখু মন্ডলে ছেলে কালাম মন্ডল, বাজিতপুর গ্রামের সেকেন্দার রহমানের ছেলে পিন্টু রহমান, আরিফপুর গ্রামের সিহাব আলীর ছেলে আসাদুল হক, রামপাড়া গ্রামের হাসেম আলীর ছেলে জাহিদুল ইসলাম।
অর্থদন্ডপ্রাপ্ত ৪ জন হলো-অমরপুর গ্রামের আনোয়ার হোসেনের ছেলে আবদুর রহিম, লালপুরের রাধাকান্তপুর গ্রামের রয়েজ উদ্দিনের ছেলে আজিজুল হক, আমোদপুর গ্রামের আবদুল জলিলের ছেলে কলিম উদ্দিন, ছাতারী গ্রামের সামসুল হকের ছেলে কলিম উদ্দিন। এদের প্রত্যেককে ৩হাজার টাকা করে অর্থদন্ড দেওয়া হয়েছে। নির্বাহি অফিসারের কার্যালয় সুত্র বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। ওসি মহসীন আলী জানান,তাদের সকলকে জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।



এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি