বৃহস্পতিবার ১৯ জুলাই ২০১৮



ফুলবাড়ীতে শিশু মিরাজ হত্যার ঘটনায় মহিলাসহ ৪ জন আটক, আলামত উদ্ধার


আলোকিত সময় :
10.07.2018

ফুলবাড়ী (দিনাজপুর) প্রতিনিধি:

দিনাজপুরের ফুলবাড়ীতে শিশু মিরাজ হত্যা কান্ডের ঘটনায় মহিলাসহ ৪ জনকে আটক করেছে পুলিশ। গত ৯ জুলাই সোমবার দিবাগত রাতে তাদের আটক করা হয়।

আটককৃতরা হলেন, উপজেলার পশ্চিম খাজাপুর গ্রামের মৃত মীর উদ্দিন এর ছেলে মমতাজ উদ্দিন (৫২), মমতাজ উদ্দিনের ছেলে মোস্তাফিজুর রহমান (৩২) মোস্তাফিজুর রহমান এর স্ত্রী জেসমিন আরা রুবী (৩০) ও মৃত মীর উদ্দিনের মেয়ে মর্জিনা বেগম (৫৫)। গতকাল মঙ্গলবার আটক ব্যক্তিদের জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ফুলবাড়ী থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) মোঃ সুলতান মাহমুদ জানান, প্রথমিক জিঙ্গাসাবাদে আটককৃতরা ঘটনার সাথে জড়িত থাকার কথা স্বীকার করেছে। তিনি আরো বলেন ধৃত আসামীদের দেয়া তথ্য মোতাবেক হত্যা কান্ডের ঘটনার আলামত উদ্ধার করা হয়েছে। মমতাজ উদ্দিন সরাসরি হত্যার ঘটনা ঘটালেও বাকি আসামীরা আলামত নষ্ট ও ঘটনা ধামাচাপা দেয়ার চেষ্ঠা করেছে বলে তারা প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে স্বীকার করেছে।

গত ৯ জুলাই সোমবার সকাল ৭ টায় ফুলবাড়ী উপজেলা এলুয়াড়ী ইউনিয়নের পশ্চিম খাজাপুর গ্রামে একটি পুকুর থেকে মিরাজ কাজিম নামে ৫ বছর বয়সী ওই শিশুর মৃতদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। নিহত শিশু মিরাজ কাজিম পশ্চিম খাজাপুর গ্রামের মাহাবুব কাজির ছেলে। তার এক ছেলে ও এক মেয়ের মধ্যে মিরাজই একমাত্র ছেলে সন্তান ছিল। এই ঘটনায় শিশুটির পিতা মাহাবুব কাজি বাদি হয়ে ৪জনকে আসামী করে ওই দিন রাতেই ফুলবাড়ী থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেছে, যার মামলা নং ১১ তাং ০৯-০৭-২০১৮ইং।



এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি