মঙ্গলবার ২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮



রাজশাহীতে আমের কেজি ১২ টাকা


আলোকিত সময় :
03.07.2018

রাজশাহী প্রতিনিধি :

রাজশাহীতে এবার লক্ষ্যমাত্রার চেয়েও বেশি আম উৎপাদন হয়েছে। কিন্তু নানা কারণে আম নিয়ে স্বস্তিতে নেই চাষীরা। ঈদসহ নানা কারণে বেচা-কেনায় ভাটা পড়ায় এখন খরচ উঠাতেই হিমশিম খেতে হচ্ছে তাদের। সমস্যা সমাধানে সরকারী উদ্যোগে আম সংরক্ষণের স্থায়ী ব্যবস্থা চান সংশ্লিষ্টরা।

আম চাষীরা বলছেন, এবার রাজশাহীতে আমের বাম্পার ফলন হয়েছে। কিন্তু মৌসুমের শুরুতেই রোজা, ঈদ ও বৈরী আবহাওয়ার কারণে আম নিয়ে বিপাকে পড়েছি। ফলে খরচ উঠানো নিয়ে শঙ্কায় আছি। এরই মধ্যে গোপালভোগ, ন্যাংড়া, হিমসাগরসহ বিখ্যাত সব আমের সময় শেষ হয়ে গেছে। এখন বিক্রি হচ্ছে কেবল ফজলি ও কিছু স্থানীয় জাতের আম।

রাজশাহীর বেশ কয়েকটি আমের বাজার ঘুরে দেখা যায়, গতবছর এসময় যে আম ১৮০০ থেকে ১৯০০ টাকা মণ দরে বিক্রি হয়েছে এখন তা বিক্রি হচ্ছে মাত্র ৫০০ থেকে ৬০০ টাকা মণ দরে। তৃণমূল পর্যায়ের এ বিপর্যয়ের কারণে আমসহ বিভিন্ন ফল প্রক্রিয়াজাত করতে এ অঞ্চলে একটি প্রক্রিয়াজাতকরণ কারখানার প্রয়োজন বলে মনে করেন ফল বিশেষজ্ঞরা।

রাজশাহীর ফল গবেষণা কেন্দ্রের প্রধান বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা মাহাবুব আলম সিদ্দিকী বলেন, রাজশাহী আমের জন্য বিখ্যাত। কিন্তু এক সময়ে চাষীরা মৌসুমী এ ফল নিয়ে বিপাকে পড়েন। অনেকে খরচ উঠাতে পারেন না। এর ফলে অনেক সময় নেতিবাচক প্রভাব পড়ে। তাই এ অঞ্চলে ফল প্রক্রিয়াজাতকরণের সুব্যবস্থা থাকা দরকার।



এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি