শনিবার ২৩ জুন ২০১৮



প্রবাসী অধ্যুষিত মৌলভীবাজারে জমে উঠেছে ঈদের বাজার


আলোকিত সময় :
10.06.2018

মৌলভীবাজার প্রতিনিধি : 

হাতে গোনা কদিন পরই পবিত্র ঈদুল ফিতুল। তাই ঈদকে সামনে রেখে মৌলভীবাজারে জমে উঠেছে কেনাকাটা । অভিজাত মার্কেট থেকে শুরু করে ফুটপাত সর্বত্রই কেনাকাটার ধুম পড়েছে। ঈদের দিন যতই ঘনিয়ে আসছে ততই জমে উঠেছে বরাবরের মতো ঈদ বাজার।
প্রবাসী অধ্যুষিত এ জেলার কয়েক লাখ লোক লন্ডন, আমেরিকা, অস্ট্রেলিয়া, কানাডা, জাপান, ইতালি, মালয়েশিয়া ও সৌদী আরব, কুয়েত, কাতার, ওমান বাহরাইন এবং মধ্যপ্রাচ্যসহ পৃথিবীর বিভিন্ন দেশে বসবাস করেন। প্রবাসীরা ও ইতোমধ্যে ছুটি কাটাতে এবং তাদের আত্মীয়-স্বজনদের সঙ্গে ঈদের আনন্দ ভাগাভাগি করতে দেশে এসেছেন।
সরেজমিনে ঈদের মার্কেট গুলো ঘুরে দেখা গেছে , কেনাকাটার আবহ বইছে মৌলভীবাজারের অভিজাত শপিংমল, বিপণিবিতান ও দেশী-বিদেশী পোশাকের পাইকারি মার্কেট গুলোতে। দোকানগুলোতে শোভা পাচ্ছে থরে থরে সাজানো নামীদামি ব্র্যান্ড ও বিদেশী পোশাকের পসরা। ফ্যাশনের বৈচিত্যের পাশাপাশি গ্র্রাহকতুষ্টির দিকে খেয়াল রেখে দোকানের সাজসজ্জাতেও এসেছে নান্দনিক পরিবর্তন। আবার ক্রেতা টানতে র‌্যাফেল ড্র কিংবা বিশেষ ছাড়ের আয়োজন রেখেছেন কেউ কেউ। দূর থেকে দৃষ্টি আকর্ষণে সাইনবোর্ডও নতুন করে লাগিয়েছেন কেউ কেউ। এক কথায় ভেতরে-বাইরে সবখানেই প্রস্তুতির ছোঁয়া।
বাণিজ্যিক কেন্দ্র এম সাইফুর রহমান রোডের ঈদবাজারের যানজট, ভিড় ও ঝামেলার মধ্যে দিয়ে অনেকেই কেনাকাটা করছেন কষ্ট করে। অভিজাত মার্কেট গুলোর মধ্যে অনত্যম মার্কেট হচ্ছে এমবি ক্লথ স্টোর, বিলাশ ডিপাটমের্ন্টাল স্টোর, সুমাইয়া বুটিক ফ্যাশন, আলমদিনা ক্লথ স্টোর,আশরাফ সেন্টার, সেরাটাউন ফ্লাজা, সেভেন স্টার, শাপলা ম্যানশন, আর,কে কমপ্লেক্স সহ অন্যান্য শপিং সেন্টারগুলো ক্রেতাদের উপচে পড়া ভিড় লক্ষ্য করা গেছে। নামী-দামী বিপনী বিতানগুলির পাশাপাশি ফুটপাতের দোকানগুলিতে হরেক রকম ডিজানের কাপড় সাজিয়ে বসেছেন হকাররা।
তবে এবারের ঈদবাজারে মেয়েদের জন্য শাড়ি, থ্রি পিস, সেলোয়ার-কামিজ, ফতোয়া, স্কার্ট-টপস, ছেলেদের লং ও শর্ট পাঞ্জাবি, ফতোয়া, শার্ট, জিন্স ও টি-শার্টসহ বাচ্চাদের নানা রঙ ও ডিজাইনের পোষাকের সমাহার ঘটেছে বিভিন্ন বিপনী বিতানে
বিলাস ক্লথ ষ্টোরের ক্রেতা নাজিয়া চৌধুরী (তাসপিয়া ) জানান সময়ও প্রায় শেষের দিকে পৌছে যাচ্ছে তাই আম্মু নিয়ে কেনাকাটা করতে আসলাম ত্রবং পোষাক গুলো ও রুচিসম্মত । ]
এম,বি ক্লথ ষ্টোরের ক্রেতা ফারাহ্ তাবাস্সুমের সাথে কথা হয় এই প্রতিবেদককের তিনি জানান , কয়েকদিনে আগেও এসে ঘুরের দেখে গেছি এখন ক্রয় করতে আসলাম এবারের পোশাকের মান গতবারের তুলনায় ভালই মনে হচ্ছে ।
বিলাস ক্লথ ষ্টোরের বিক্রেতা ফাহিম আহমেদ এই প্রতিবেদককে জানান, পাইকারি বাজার থেকে পছন্দের পোশাক আনা হয়েছে। তবে রোজার প্রথম কয়েকদিনের তুলনায় ত্রখন ক্রেতা বেশী ত্রবং বিক্রি ও ভাল হচ্ছে ।
নিম্ন আয়ের মানুষরা ভিড় জমাচ্ছেন ফুটপাতের এসব দোকান গুলিতে। অবশ্য ঈদকে সামনে রেখে অযৌক্তিকভাবে কাপড়ের মূল্যবৃদ্ধির অভিযোগ ও করেছেন অনেক ক্রেতা। ফলে ক্রেতাদের বাধ্য হয়ে কয়েকগুণ বেশিদামে পোষাক কিনতে হয়।
মৌলভীবাজার জেলা পুলিশ সুপার (এসপি) মোহাম্মদ শাহ্ জালাল জানান, ঈদ বাজারে নিরাপত্তায় পুলিশের পাশাপাশি র‌্যাব টহলে রয়েছে এবং শহর ও শহরের বাইরে ঝুঁকিপূর্ণ এলাকা ও পয়েন্টে সার্বক্ষনিক টহলে দিচ্ছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা ।



এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি